{{theTime}} |   Sun 21 Jan 2018

কার্পেট বাসা-বাড়ির সৌন্দর্য বজায় রাখে

প্রকাশঃ শনিবার, ২১ অক্টোবর ২০১৭    ১৫:২৮
তানিয়া/রাইজিং নিউজ

ঘর সাজানোর এক অনন্য মাধ্যম কার্পেট। কার্পেট ঘরের সৌন্দর্য বাড়ায়। ঘরে আনে আভিজাত্যের ছোঁয়া।

আধুনিক বাড়িগুলোর মেঝেতে মোজাইক বা টাইলস বসানো এখনকার রীতি বলে কার্পেটের ব্যবহার এখন বেশ কমই দেখা যায়। তবুও কার্পেট আভিজাত্যের প্রতীক বলে অনেক বাড়িতেই কার্পেটই অগ্রাধিকার পায়।

কার্পেট বেশ ব্যয়বহুল বলে সাধারণত শুধু বসার ঘরেই কার্পেট ব্যবহার করা হয়। অনেকে বসার ঘরের পাশাপাশি শোবার ঘরেও কার্পেট ব্যবহার করেন। কার্পেট নির্বাচনের ক্ষেত্রে ঘরের আকার, দেয়ালের রং, আসবাবপত্র ও পর্দার রং ইত্যাদি বিষয়গুলো মাথায় রাখা জরুরি।



 

বিশেষ করে দেয়ালের রং ও আসবাবপত্রের রঙের সাথে কার্পেটের রং সামঞ্জস্যপূর্ণ না হলে তা ভালো দেখায়না। ঝামেলা এড়ানোর জন্য ব্রাউন, কফি, মেরুন বা সবুজাভ রংগুলো কার্পেটের ক্ষেত্রে বেছে নিতে পারেন।এ রঙের কার্পেটগুলো প্রায় সব ধরনের দেয়াল ও আসবাবপত্রের সাথে মানিয়ে যায়।

 

কার্পেট নির্বাচনের ক্ষেত্রে ঘরের আকারও একটি বিবেচ্য বিষয়। সাধারণত কার্পেট ব্যবহার করা হয় চারকোনা, আয়তকার, গোলাকার ও ডিম্বাকার। আকারে বড় কক্ষে চারকোনা কার্পেটই ভালো দেখা যায়। চওড়া কম কিন্তু লম্বা ঘরে আয়তকার বা ডিম্বাকার কার্পেট ব্যবহার করতে পারেন।

গোল কার্পেট সেন্টার কার্পেট হিসেবে শোবার ঘরেই বেশি মানানসই। বেডসাইড ছোট রাখতে চাইলে ডিম্বাকার কার্পেট বেশি ভালো লাগবে। শোবার ঘরে কার্পেট রাখুন ড্রেসিংটেবিলের কাছে। এতে আপনারই কাপড় পরতে সুবিধা হবে। মেঝেতে কাপড় পরে ময়লা লাগার সম্ভাবনা থাকবে না। কার্পেট শুধু ব্যবহার করলেই চলবে না, এর যত্নও করতে হবে। কার্পেট নিয়মিত পরিষ্কার করুন। কার্পেট ড্রাইওয়াশ করাই ভালো।

কার্পেট ব্যবহারের কিছু দিকঃ

* বিল্ট ইন স্টেন রেসিস্টেন্ট ফাইবার দিয়ে তৈরি কার্পেট কেনার চেষ্টা করুন। এজন্য দোকানে আগে থেকে অর্ডার দিয়ে রাখতে পারেন। সাধারণত এগুলো সিন্থেটিক মেটিরিয়ালের তৈরি হয়। সুন্দর করে বসারঘর সাজাতে হলে সিল্কের ফ্লোর কাভারিং কার্পেট কিনুন।

* বয়স্কদের জন্য লাইনিং বা প্যাডিং করা স্লিপ রেসিসটেন্স কার্পেট হলে ভাল হয়।

* ঘরে আদরের কুকুর-বিড়াল থাকলে মোটা বুননের কার্পেট কিনুন। না হলে পোষ্যর নখের আঁচড়ে কার্পেট নষ্ট হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

* একটু শীতের সময় উলের কার্পেট ভাল। এতে অ্যালার্জির সম্ভাবনা কম থাকে এবং টেকসই হয়।

* বাড়ির দরজার বাইরে, ড্রয়িং-ডাইনিং রুমে জুটের কার্পেট দিন কারণ এসব জায়গায় ভিজাভাব থাকে না।

* রান্নাঘর বা বাথরুমের বাইরের জন্য চাটাই সবচেয়ে উপযুক্ত। অ্যান্টি স্লিপ হওয়ায় পড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা নেই এবং চাটাইয়ের দুপিঠই ব্যবহার করা যায়।

 

add.jpg
add.jpg

সম্পাদক

কাজী এম আনিছুল ইসলাম

ভারপ্রাপ্ত প্রকাশক

মোঃ আব্দুল হামিদ

আমাদের সাথে থাকুন
সদ্য সংবাদ